মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ২nd জুলাই ২০২২

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)-এর টেকনাফ ব্যাটালিয়নের অভিযানে ৬ কোটি ৮০ লক্ষাধিক টাকা মূল্যমানের ১.০৬০ কেজি ক্রিস্টাল মেথ আইস এবং ৫০,০০০ পিস ইয়াবাসহ একজন মাদক কারবারী আটক ।


প্রকাশন তারিখ : 2022-07-02
বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)-এর টেকনাফ ব্যাটালিয়নের অভিযানে ৬ কোটি ৮০ লক্ষাধিক টাকা মূল্যমানের ১.০৬০ কেজি ক্রিস্টাল মেথ আইস এবং ৫০,০০০ পিস ইয়াবাসহ একজন মাদক কারবারী আটক
বর্তমান সরকারের মাদকের বিরুদ্ধে "জিরো টলারেন্স" নীতির যথাযথ বাস্তবায়নকল্পে মাঠ পর্যায়ে বিজিবি'র অভিযানিক কর্মকাণ্ড এবং গোয়েন্দা তৎপরতা অব্যাহত রয়েছে। এরই ধারাবাহিকতায় বিজিবি'র টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) কর্তৃক পরিচালিত পৃথক পৃথক অভিযানে ৬,৮০,২০,০০০ (ছয় কোটি আশি লক্ষ বিশ হাজার) টাকা মূল্যমানের ১.০৬০ কেজি ক্রিস্টাল মেথ আইস ৫০,০০০ পিস ইয়াবা ও কাঠের নৌকাসহ একজন মাদক কারবারীকে আটক করা হয়েছে।
০১ জুলাই ২০২২ তারিখ ডিজিএফআই, কক্সবাজার ডেট-এর মাঠকর্মীর প্রদত্ত তথ্যের ভিত্তিতে জানা যায় যে, টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) এর অধীনস্থ উনচিপ্রাং বিওপি’র দায়িত্বপূর্ণ বিআরএম-১৭ থেকে আনুমানিক ২.৫ কিঃ মিঃ পশ্চিম দিকে আন নূরের ঘের এলাকা দিয়ে মাদকের একটি বড় চালান বাংলাদেশে পাচার হতে পারে। উক্ত তথ্যের ভিত্তিতে টেকনাফ ব্যাটালিয়ন (২ বিজিবি) এর অধীনস্থ উনচিপ্রাং বিওপি’র একটি চোরাচালান প্রতিরোধ টহলদল তাৎক্ষনিকভাবে বর্ণিত এলাকায় গমন করতঃ বেড়ীবাঁধ ও কেওড়া বাগানের আঁড় নিয়ে গোপনে কৌশলগত অবস্থান গ্রহণ করে। আনুমানিক সন্ধ্যা ১৮৩০ ঘটিকায় বিজিবি টহলদল ০১ জন ব্যক্তিকে একটি কাঠের নৌকা যোগে মায়ানমার হতে শূন্য লাইন অতিক্রম করে বাংলাদেশের অভ্যন্তরে আসতে দেখে। উক্ত ব্যক্তি নাফ নদীর পাড়ে আসলে পূর্ব থেকেই কৌশলগত অবস্থানে থাকা বিজিবি টহলদল বর্ণিত ব্যক্তিকে চ্যালেঞ্জ করলে উক্ত ব্যক্তি নৌকা হতে লাফিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টাকালে টহলদল তার পিছু ধাওয়া করে আটক করতে সক্ষম হয়। বিজিবি টহলদল কর্তৃক উক্ত ব্যক্তিকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে তার স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে নৌকার পাটাতনের নিচ হতে অভিনব পদ্ধতিতে লুকায়িত অবস্থায় ৯০,০০,০০০/- (নব্বই লক্ষ) টাকা মূল্যমানের ৩০,০০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট আটক করতে সক্ষম হয়। এছাড়াও অবৈধভাবে মাদকদ্রব্য বহনের দায়ে ২০,০০০/- (বিশ হাজার) টাকা মূল্যমানের বর্ণিত কাঠের নৌকাটিও আটক করা হয়। পরবর্তীতে ধৃত আসামী মোঃ ফারুক (৩০), পিতা-নুর আহমেদ, গ্রাম-উনচিপ্রাং, পোস্ট-নয়াপাড়া, থানা-টেকনাফ, জেলা-কক্সবাজার’কে অধিকতর জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে ০১ জুলাই ২০২২ তারিখ আনুমানিক ২২৩০ ঘটিকায় ব্যাটালিয়ন সদর হতে ভারপ্রাপ্ত অপারেশন অফিসারের নেতৃত্বে অপর একটি বিশেষ টহলদল হ্নীলা অবরাং এলাকায় গমন করতঃ তল্লাশী অভিযান পরিচালনা করে। উক্ত অভিযানে বেড়ীবাঁধের পার্শ্বে পূর্বে পাচার করে আনা মাদকের আরেকটি চালান মাটির নিচে বিশেষভাবে লুকায়িত অবস্থায় একটি প্লাস্টিকের ব্যাগ উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারকৃত ব্যাগের ভিতর হতে ৫,৯০,০০,০০০/- (পাঁচ কোটি নব্বই লক্ষ) টাকা মূল্যমানের ১.০৬০ কেজি ক্রিস্টাল মেথ আইস এবং ২০,০০০ (বিশ হাজার) পিস ইয়াবা ট্যাবলেট জব্দ করা হয়।
জব্দকৃত ক্রিস্টাল মেথ আইস এবং ইয়াবা ট্যাবলেটসহ অবৈধভাবে মাদক বহন ও পাচার এর দায়ে বর্ণিত ব্যক্তির বিরুদ্ধে নিয়মিত মামলার মাধ্যমে টেকনাফ মডেল থানায় হস্তান্তর করার কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।
May be an image of 3 people, people standing and text
 
 
 
 
 
 

Share with :

Facebook Facebook